হোম আহলে বায়াত (পাকপাঞ্জাতন) আহলে বাইয়াতের নামের শেষে আলাইহিস সালাম ব্যবহার করা যাবে কিনা।

আহলে বাইয়াতের নামের শেষে আলাইহিস সালাম ব্যবহার করা যাবে কিনা।

আহলে বাইয়াতের নামের শেষে আলাইহিস সালাম ব্যবহার করা যাবে কিনা।

“আহলে বাইয়াতের নামের শেষে আলাইহিস সালাম ব্যবহার করা যাবে কি যা‌বে না”। এ সম্পর্কে হাদিসের ইমামগণ আহলে বাইয়াতের নামে আলাইহিস সালাম ব্যবহার করেছেন কিনা?

(১) বুখারী শরীফে ২০৮৯ নং হাদিসের সনদের মধ্যে ইমাম বুখারী মাওলা আলীর নামের শেষে আলাইহি সালাম ব্যবহার করেছেন, যা নিম্নরূপঃ

أَخْبَرَهُ أَنَّ عَلِيًّا عَلَيْهِ السَّلاَمُ،

(২) বুখারী শরীফে তাফসীর অধ্যায়ে সূরা লাইল এর তাফসীরে ৪৯৪৭ নং হাদিসের সনদের মধ্যে ইমাম বুখারী মাওলা আলীর নামের শেষে আলাইহি সালাম ব্যবহার করেছেন, যা নিম্নরূপঃ

عَنْ عَلِيٍّ عَلَيْهِ السَّلاَمُ، قَالَ

(৩) বুখারী শরীফে তাফসীর অধ্যায়ে সূরা জারিয়াত এর তাফসীরে ইমাম বুখারী মাওলা আলীর নামের শেষে আলাইহি সালাম ব্যবহার করেছেন, যা নিম্নরূপঃ

قَالَ عَلِيٌّ عَلَيْهِ السَّلاَمُ: ” الذَّارِيَاتُ

(৪) ইমাম বুখারী বুখারী শরীফের কিতাবুল মাগাজী (যুদ্ধাভিযান অধ্যায়) এর একটি বাবের (অনুচ্ছেদ) নাম দিয়েছেনঃ

بَابُ بَعْثِ عَلِيِّ بْنِ أَبِي طَالِبٍ عَلَيْهِ السَّلاَمُ

(৫) ইমাম বুখারী বুখারী শরীফের কিতাবুত তাকাসীর (কসর অধ্যায়) এর একটি বাবের (অনুচ্ছেদ) নামঃ

بَابُ يَقْصُرُ إِذَا خَرَجَ مِنْ مَوْضِعِهِ وَخَرَجَ عَلِيُّ بْنُ أَبِي طَالِبٍ عَلَيْهِ السَّلاَمُ

(৬) ইমাম বুখারী মা ফাতিমার নামে আলাইহিস সালাম ব্যবহার করেছেন।দেখুন বুখারী শরীফ সাহাবীদের ফজিলত অধ্যায়,

بَابُ مَنَاقِبِ فَاطِمَةَ عَلَيْهَا السَّلاَمُ

(৭) ইমাম বুখারী ইমাম হুসাইনের নামে আলাইহিস সালাম ব্যবহার করেছেন।দেখুন বুখারী শরীফ সাহাবীদের ফজিলত অধ্যায় ৩৭৪৮ নং হাদিসঃ

الحُسَيْنِ عَلَيْهِ السَّلاَمُ

(৮) হাদিসের অন্যতম কিতাব সুনানে আবি দাঊদ এর মধ্যে অনেক স্থানে ইমাম আবি দাঊদ মাওলা আলীর নামের শেষে আলাইহি সালাম ব্যবহার করেছেন। যেমন,১২৭২ নং হাদিসঃ-

عَنْ عَلِيٍّ عَلَيْهِ السَّلَام،

এভাবে সুনানে আবি দাউদের হাদিস নং- ১৫৭৪, ২০৭৭, ২৯৮৪, ৩২১৪, ৩৫৮২, ৩৬৯৭, ৩৮২৮, ৩৮৫৬, ৪৪০২, ৪৪০৩, ৪৩৫১, ৪৬৩০, ৪৬৪৬, ৪৬৪৯, ৪৫৩০, ৪৭৭০, ৪৯৬৭, ৫০৬৪ ও ৫১৫৬ -তে মাওলা আলীর নামের শেষে আলাইহি সালাম ব্যবহার করা হয়েছে।

(৯) ইমাম আহমদ বিন হাম্বল স্বীয় হাদিসের গ্রন্থ ফাজায়েলে সাহাবা-এর মধ্যে বিভিন্ন স্থানে মাওলা আলীর নামের শেষে আলাইহিস সালাম ব্যবহার করেছেন। যেমন,১২২৯ নং হাদিসঃ-

قَالَ عَلِيٌّ عَلَيْهِ السَّلَامُ

এভাবে ফাজায়েলে সাহাবা গ্রন্থের হাদিস নং-১১৩০, ১৩২৩, ১৩২৬, ১৩৩৪, ১৩৬৪, ১৩৬৯, ১৩৭২, ১৩৮৫, ১৫৮৪-তে মাওলা আলীর নামের শেষে আলাইহিস সালাম ব্যবহার করেছেন।

Source: Mainia Youth Forum (Facebook Page)

পূর্ববর্তী পোস্টইমাম জাফর সা‌দেক (আ:)- দ্বী‌নিশিক্ষা ব্যবস্থার প্রবর্ত‌ক।
পরবর্তী পোস্টঈদে মিলাদুন্নবী (সাঃ)-কি এবং কেন?
হে মানব! তুমি তোমার প্রতিপালকের নিকট পৌঁছানো পর্যন্ত যে কঠোর সাধনা করে থাকো, তা তুমি দেখতে পাবে। - (সূরাঃ আল ইনশিকাক-৬)

এই পোস্টে একটি মন্তব্য করুন:

আপনার মন্তব্য লিখুন!
এখানে আপনার নাম লিখুন